Breaking News
Home >> Breaking News >> শিশু বদলে নাম জড়াল বর্ধমান হাসপাতালের

শিশু বদলে নাম জড়াল বর্ধমান হাসপাতালের

নিজস্ব সংবাদদাতা, বর্ধমান: ফের বিতর্কে বর্ধমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল। দালালচক্র, মাদকচক্র,পরিষেবা নিয়ে নানা প্রশ্নের পর ফের শিশু বদলে নাম জড়াল বর্ধমান হাসপাতালের। পুত্র সন্তানের বদলে কন্যা সন্তান দেওয়ার অভিযোগ উঠল খোদ সরকারী সেবাকেন্দ্রের বিরুদ্ধে। ইতিমধ্যে অভিযোগ মেনে নিয়ে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তদন্ত কমিটি গঠন করেছে।

গত মঙ্গলবার সকালে বর্ধমানের পূর্বস্থলীর মেড়তলা গ্রামের বিশ্বজিৎ সূত্রধর তার স্ত্রী ঝুম্পাকে হাসপাতালের প্রসূতি বিভাগে ভর্তি করেন। ওইদিন রাত সাড়ে দশটার সময় সিজার করে তার একটি পুত্র সন্তান হয় বলে পরিবারের দাবী। বাচ্ছা হওয়ার পর ঝুম্পাদেবীর মা নমিতা পালের কোলে সদ্যজাত শিশুপুত্রকে দিয়ে যায় নার্সরা। কিন্তু নমিতা দেবীর অভিযোগ, আধঘন্টা পর নার্সরা ফের এসে সদ্যজাতকে নিয়ে চলে যায়, এবং তাদের একটি কন্যা সন্তান দেয়। নমিতাদেবীকে নার্সরা জানান টিকিটের ভুল হওয়ায় বাচ্ছা বদল হয়েছিল।

ঘটনার পরেই ক্ষোভ প্রকাশ করেনন সদ্যজাতের পরিবার। তাদের দাবী, হাসপাতাল তাদের ভুল বুঝিয়ে কন্যা সন্তান দিতে চাইছে। সদ্যজাতের বাবা বিশ্বজিৎ সূত্রধর বুধবারই ঘটনার বিষয়ে হাসপাতাল সুপারের কাছে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। কিন্তু কাল থেকে হাসপাতালের তরফে কোন উদ্যোগ চোখে না পড়ায় বৃহঃস্পতিবার সকালে তিনি বর্ধমান থানায় এই বিষয়ে অভিযোগ করতে যান। তার দাবী, যদি তাদের সত্যি কন্যা সন্তান হয়ে থাকে, তাহলে সেই বিষয়ে তাদের উপযুক্ত প্রমাণ দিয়ে বিষয়টি পরিস্কার করে দেওয়া হোক।

হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ বিষয়টি স্বীকার করে নিয়ে একটি চার সদস্যদের তদন্ত কমিটি গঠন করেছে। হাসপাতালের সুপার উৎপল দাঁ জানান, প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছে সদ্যজাতদের নম্বর ঠিকমত না দেখেই শিশু পরিবারের হাতে দেওয়াতেই এই বিপত্তি। তদন্ত কমিটির রিপোর্ট হাতে এলে এই বিষয়ে পরবর্তী পদক্ষেপ নেওয়া হবে বলে তিনি জানান।

এছাড়াও চেক করুন

পশ্চিম মেদিনীপুরের লোহাটিকরীতে উল্টে গেল একটি সরকারি বাস

কা‌র্তিক গুহ, ‌স্টিং নিউজ, পশ্চিম মেদিনীপুর :- পশ্চিম মেদিনীপুরের গুড়গুড়িপাল থানার অন্তর্গত লোহাটিকরীতে উল্টে গেল …

Leave a Reply

Your email address will not be published.