Breaking News
Home >> Breaking News >> সোশ্যাল মিডিয়ার সুফল হারানো বাবাকে ফিরে পেল ছেলে

সোশ্যাল মিডিয়ার সুফল হারানো বাবাকে ফিরে পেল ছেলে

পশ্চিম মেদিনীপুর: সোশ্যাল মিডিয়ার সুফল হারানো বাবাকে ফিরে পেল ছেলে । পশ্চিম মেদিনীপুর দাঁতন থানার ওরলাম গ্রাম বছর পঞ্চাশের এর খপ্পর হেমরম । গত সাত বছর আগে নিখোঁজ হয়ে যায় । চারিদিকে আত্মীয়র বাড়ি খোঁজাখুঁজি থেকে শুরু করে বিভিন্ন থানায় তার ছবি পোস্ট করে হারানো বাবাকে ছেলেকে খুঁজে পেতে ছেলে ধুনা হেমরম ও স্ত্রী সোমবারই হেমরম প্রথমে জানা যায় এক বছর আগে আসামের কোন একটি জায়গায় তাদের হারিয়ে যাওয়া থাপ্পর রয়েছে সেখানে ।

যোগাযোগ করলে সেখান থেকে নিখোঁজ হয়ে যায় তারপর গন্তব্য স্থল উত্তর ২৪ পরগনা সুন্দরবনের হেমনগর কোস্টাল থানা । হেমনগর নগর এর রাস্তায় ঘোরাঘুরি করতে দেখা যায । শ্যামল মন্ডল হিঙ্গলগঞ্জ এর বিধায়ক দেবেশ মন্ডল তত্ত্বাবধানে তাকে চিকিৎসকের কাছে নিয়ে গিয়ে স্বাস্থ্য সেবা ও শারীরিকভাবে সব রকম সাহায্য করে , তার বাড়ির ঠিকানা জানা যায় দাঁতন থানার ওর লাম গ্রামে ।

হেমনগর গ্রামে ঘোরাঘুরি করতে থাকে তখন হেম্নগর কোস্টাল থানার পুলিশ আধিকারিক রাকেশ চ্যাটার্জী দাঁতন থানার সঙ্গে ছবি পোস্ট করে তার বাড়ির ঠিকানা খুঁজে পায় । উপযুক্ত প্রমান সহ স্ত্রী ও ছেলে এমনি আমি রাতে স্থানীয় বাসিন্দারা পরিবারের লোক ও স্থানীয় বাসিন্দারা এই পৌর খাইয়ে-দাইয়ে তাদের আশায় রেখে দেখভাল করতো ।

গত এক মাস ধরে বাসিন্দারা একদিকে তাদের শীতের পোশাক অন্যদিকে তার দৈনন্দিন জীবনের খাওয়া-দাওয়া , পাশাপাশি তার ছবি রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে বিভিন্ন থানা গুলিতে পোস্ট করে যে জানিয়ে দেন যে বছর পঞ্চাশোর্ধ পৌড়া খপ্পর এইভাবে ঘোরাঘুরি করছে হেমনগর কোস্টাল থানার পুলিশ আধিকারিক তার এই ছবি পোস্ট করতেই নজরে দাঁতন দা থানা পুলিশের সঙ্গে যোগাযোগ হয় ।

স্থানীয় প্রশাসনের এই যোগসূত্রে সমস্ত উপযুক্ত প্রমাণ দিয়ে তাদের হাতে তাদের হারানো বাবা খপ্পর হেমরম কে তুলে দেয়া হয় । রবিবার সকাল ন’টা নাগাদ তুলে দেয় হারানো বাবাকে ফিরে ছেলে ধুনা হেমরম। স্ত্রী সোমবারই হেমরম এই ঘটনা আরো একবার প্রমাণ করে দিল সোশ্যাল মিডিয়ায় যেমন একদিকে কুফল আছে অন্যদিকে সুফলতা আছে।

এছাড়াও চেক করুন

জঙ্গল মহলে ফের তৃণমূলে ভাঙন ধরালেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ

স্টিং নিউজ সার্ভিস, ঝাড়গ্রাম:- বেলপাহাড়ির পর নয়াগ্রামে বিজেপিতে যোগ দিলেন কয়েকশো তৃণমূল ও সিপিএম কর্মী …

Leave a Reply

Your email address will not be published.