Breaking News
Home >> Breaking News >> কোচবিহারে উদ্ধার গাঁজা কি মালখানা থেকে চুরি যাওয়া মাল, প্রশ্ন শহরবাসীর

কোচবিহারে উদ্ধার গাঁজা কি মালখানা থেকে চুরি যাওয়া মাল, প্রশ্ন শহরবাসীর

মনিরুল হক, কোচবিহারঃ কোচবিহারে উদ্ধার হল বিপুল সংখ্যক গাঁজা। রবিবার কোচবিহার শহরের ১নং ওয়ার্ডে উচ্চবালিকা বিদ্যালয়ের উল্টো দিকে বয়েজ হোস্টেল সংলগ্ন ক্ষত্রিয় সোসাইটির জমিতে ১৬-১৭ প্যাকেট গাঁজা পড়ে থাকতে দেখেন স্থানীয় বাসিন্দারা। খবর দেওয়া হয় কোচবিহার কোতোয়ালি থানায়। ঘটনাস্থলে গিয়ে পুলিশ প্যাকেটগুলি উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়।

ক্ষত্রিয় সোসাইটির সহ সভাপতি রাধাকান্ত বর্মা এ সম্পর্কে বলেন, ‘আজ সকালে আমাদের সোসাইটির ক্যাশিয়ারের কাছে ফোন আসে যে, সোসাইটির জায়গায় বেশ কিছু গাঁজার প্যাকেট পড়ে আছে। সঙ্গে সঙ্গে আমরা থানায় বিষয়টি জানাই। পুলিশ এসে প্যাকেটগুলি যায়।সম্ভবত গাঁজার প্যাকেটগুলি সরকারি হেফাজত থেকে চুরি হয়েছিল। কারণ, প্যাকেটগুলিতে সরকারি স্টিকার সাঁটানো থাকতে দেখা গিয়েছে। মনে হচ্ছে, সেই চুরির গাঁজাই এখানে কেউ রেখে দিয়ে গিয়েছে।’

এর আগে গত ৫ মার্চ রাতে আদালত চত্বরে মালখানার গ্রিল ভেঙে প্রচুর পরিমাণ উদ্ধার হওয়া গাঁজা চুরি করে চম্পট দেয় দুষ্কৃতীরা। কি পরিমাণ গাঁজা চুরি হয়েছে, তা সুনির্দিষ্ট ভাবে জানা না গেলেও মালখানার একটা বড় জায়গা ফাঁকা হয়েছিল এর পর। অসমর্থিত সূত্রের খবর, ৫৫ টি প্যাকেটে সাড়ে তিন ক্যু ইন্টালের মত গাঁজা সেদিন চুরি হয়েছিল। পুলিশ পাহারায় থাকা সত্ত্বেও আদালত চত্বরে পুলিশ লকআপের মালখানা থেকে কী করে ওই গাঁজা চুরি হয়ে গেল, স্বাভাবিক ভাবেই তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। ফলে এদিনের উদ্ধার হওয়া গাঁজা আদালত চত্বরের সেই মালখানা থেকে চুরি যাওয়া গাঁজা বলেই মনে করছেন কোচবিহারবাসী।

এছাড়াও চেক করুন

মাতৃভাষা বাঁচাবার তাগিদে সাইকেল চেপে দেশ ভ্রমণ যুবকের

বিশ্বজিৎ সরকার, স্টিংনিউজ করেসপনডেন্ট, দার্জিলিংঃ মাতৃভাষা বাঁচাবার তাগিদে সাইকেল চেপে দেশ ভ্রমণে মহারাষ্ট্রের ডংরিগলির বাসিন্দা …

Leave a Reply

Your email address will not be published.