Breaking News
Home >> Breaking News >> প্রার্থী নিয়ে কোন্দল, কোচবিহারে তৃণমূলের ভোট ব্যাঙ্ক ভাঙতে পারবে কি বিজেপি ?

প্রার্থী নিয়ে কোন্দল, কোচবিহারে তৃণমূলের ভোট ব্যাঙ্ক ভাঙতে পারবে কি বিজেপি ?

মনিরুল হক, কোচবিহার: দীর্ঘ টানাপোড়নের পর বিজেপির প্রথম প্রার্থী তালিকা ঘোষণা হয় বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৭ টায়। দিল্লির সদর দপ্তর থেকে ১৮২টি আসনের প্রার্থী তালিকা ঘোষণা হয়৷ এর মধ্যে পশ্চিমবঙ্গের ২৮টি আসন আছে। প্রার্থী চূড়ান্ত করল বিজেপি। ভারতের ১ নম্বর লোকসভা আসন কোচবিহার নিয়ে বিজেপির অন্দরমহলে আগে থেকেই কানাঘুষো চলছিল নিশীথ প্রামাণিককে নিয়ে৷ জল্পনা ছিল কোচবিহার লোকসভা কেন্দ্রে শাসক দলের প্রার্থী পরেশ চন্দ্র অধিকারীর বিরুদ্ধে বিজেপির হয়ে লড়তে পারেন নিশীথ প্রামানিক৷ সেই জল্পনা সত্যি করে কোচবিহারে তৃণমূলের বহিষ্কৃত যুবনেতা নিশীথ প্রামানিককে প্রার্থী করা হয়, যিনি গত মাসের ২৮ তারিখ দিল্লিতে গিয়ে বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন মুকুল রায়ের হাত ধরে। তিনি লড়াই করবেন বামফ্রন্ট জমানার সর্বশেষ খাদ্যমন্ত্রী তথা বর্তমান শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেসের পরেশ চন্দ্র অধিকারীর বিরূদ্ধে।
২০১৬ সালে কোচবিহার লোকসভা কেন্দ্রের উপনির্বাচনে তৃণমূল প্রার্থী পার্থপ্রতিম রায় ভোট পেয়েছিলেন ৭ লক্ষ ৯৩ হাজার ৩৭৪। বিজেপি প্রার্থী হেমচন্দ্র বর্মন পেয়েছিলেন ৩ লক্ষ ৮১ হাজার ১১৩, সেখানে বামফ্রন্ট প্রার্থীর প্রাপ্ত ভোট ছিল ৮৭ হাজার ৩৬৩। ২০১৬ সালে ৪ লক্ষ ১২ হাজার ২৬১ ভোটে বিজেপিকে হারিয়ে দিয়ে তৃণমূল জয়লাভ করে।
২০১৪ সালে লোকসভা নির্বাচনে এই কেন্দ্রে তৃণমূলের রেণুকা সিনহা পেয়েছিলেন ৫ লক্ষ ২৬ হাজার ৪৯৯ ভোট। আর বিজেপি হেমচন্দ্র বর্মন পেয়ে ছিলেন ২ লক্ষ ১৭ হাজার ৬৫৩ ভোট। তৃণমূলের যেমন ২ লক্ষ ৭০ হাজার ভোট বেড়েছে, তেমনই বিজেপিও পাল্লা দিয়ে ভোট বাড়িয়েছে ১ লক্ষ ৬৪ হাজার। বিজেপি-র এই ভোট বৃদ্ধি তৃণমূলের মাথাবাথ্যার কারণ হতে বাধ্য।
এছাড়াও তৃণমূলের বহিষ্কৃত যুবনেতা নিশী প্রামানিক বিজেপিতে যোগ দেওয়ায় কতটা তৃণমূলের ভোট বাক্স ভাঙ্গাতে পারে, সেটাই এখন দেখার।

এছাড়াও চেক করুন

তৃণমূল কংগ্রেস কে তিনি “ভীতু” বলে কটাক্ষ ভারতী ঘোষের

কার্তিক গুহ, পশ্চিম মেদিনীপুর: “কেশপুরে তৃণমূল আমাদের ভয় পেয়েছে। তাই আমাদের আটকানোর জন্য সর্বতোভাবে চেষ্টা …

Leave a Reply

Your email address will not be published.