Breaking News
Home >> Breaking News >> বিয়েতে বরপক্ষকে যৌতুক দেওয়া হল, বই

বিয়েতে বরপক্ষকে যৌতুক দেওয়া হল, বই

নিজস্ব প্রতিবেদন, হেঁড়িয়াঃ বিয়ে মানে অঙ্গাঅঙ্গিকভাবে জড়িয়ে আছে যৌতুক ব্যবস্থাপনা।যদিও মুখে বলা হয় যৌতুক আইনবিরুদ্ধ তবুও এই প্রথা চলে আসছে যুগের পর যুগ।তবে পূর্ব মেদিনীপুরের হেঁড়িয়া থানার মিত্রচক গ্রামে প্রিয়াংকা বেজের বিয়েতে যৌতুক দেওয়া হলো ঠিকই তবেতা একেবারই ব্যতিক্রমি যৌতুক।প্রিয়াংকা ছোট বেলা থেকেই বই পড়তে ভালোবাসতো।আর তার সাথে বিয়ে হলো হেঁড়িয়া এলাকাতেই সূর্যকান্ত বারিকের।বিয়েতে দেখাশোনার সময় পাত্রী প্রিয়াংকাকে দেখেই পছন্দ হয়ে যায়।

সূর্যকান্তের যৌতুক নেওয়ার কোন আগ্রহই ছিল না প্রথম থেকে। প্রিয়াংকার মতো সূর্যও বইপ্রেমিক।কন্যাপক্ষ তাদের মেয়েকে রীতি অনুযায়ী সাজিয়ে বিবাহ বাসরে বসান বাবা অমিত বেজ।তবে সবাইকে চমকে মেয়ের দাবী মতো পাত্রপক্ষকে যৌতুক দেন।বিয়ের সভাস্থলে হাজির করা হয় একের পর এক বই।অমিত বাবু জানান, সমাজে বই পড়ার প্রচলন কমছে।ইন্টারনেটের যুগে বই পড়া এখন ল্যাপটপে বা মোবাইলে।সমাজে গল্পের বই পড়া বর্তমানে ছেলেমেয়েদের মধ্যে আগ্রহ হারাচ্ছে।

তাই বই এর সচেতনতা বাড়াতে ৩০ হাজার টাকার বই যৌতুক হিসাবে বিয়ের আসরে তুলে দেন কন্যাদায়গ্রস্থ পিতা অমিত বেজ।তার আশা এই প্রচলন ক্রমশ বাড়ুক সমাজে।তাতেকরে বই পড়ার প্রতি আগ্রহ বাড়বে বর্তমান যুবসমাজের।মিত্রচক গ্রামে অমিত বাবুর এমন ব্যতিক্রমি উদ্যোগ দেখে খুশি পাত্রপক্ষ থেকে স্থানীয় মানুষজন।

এছাড়াও চেক করুন

দুর্নীতির অভিযোগে উত্তাল নদিয়ার চাকদহের ঘেঁটুগাছি গ্রাম পঞ্চায়েত

কমল দত্ত, স্টিং নিউজ, নদিয়াঃ নদিয়ার চাকদহের ঘেঁটুগাছি গ্রাম পঞ্চায়েতে দুর্ণীতির অভিযোগে উত্তালজেপি কর্মীদের বিক্ষোভ। …

Leave a Reply

Your email address will not be published.