Breaking News
Home >> Breaking News >> তৃণমূলের গোষ্ঠী সংঘর্ষে মৃত দিনহাটার ছাত্র নেতার দাদাকে চাকরি দেওয়ার আশ্বাস রবির

তৃণমূলের গোষ্ঠী সংঘর্ষে মৃত দিনহাটার ছাত্র নেতার দাদাকে চাকরি দেওয়ার আশ্বাস রবির

মনিরুল হক, কোচবিহারঃ তৃণমূল কংগ্রেসের গোষ্ঠী কোন্দলের জেরে মারাত্মক ভাবে নিগৃহীত হয়ে মৃত্যু হয়েছিল দিনহাটা কলেজের পড়ুয়া অলক নিতাই দাসের পরিবারের একজনকে চাকরির আশ্বাস দিলেন উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন মন্ত্রী রবীন্দ্রনাথ ঘোষ। বুধবার রাত ১০টা নাগাদ তিনি নির্দল জন প্রতিনিধিদের আহ্বানে দিনহাটার পুটিমারি এলাকায় যান। সেখানে একটি ঘরোয়া বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন যুব গোষ্ঠীর অনুগামী হিসেবে পরিচিত অলক নিতাই দাসের বাবা মা সাথে পরিবারের অন্যান্য সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। সেখানে মন্ত্রীকে পেয়ে তাঁদের পারিবারিক অবস্থার কথা তুলে ধরেন।

অলক নিতাই দাসের দাদা গৌরাঙ্গ দাসকে একটি চাকরি দেওয়ার জন্য অনুরধ জানানো হয়। এরপরেই মন্ত্রী তাঁদের আশ্বাস দিয়ে বলেন, “বড় কোন চাকরি করে দিতে পারবো না। তবে ‘গ্রুপ ডি’ স্তরের কোন চাকরি যদি করে, তাহলে আমি চেষ্টা করে দেখতে পারি।” মন্ত্রীর ওই আশ্বাসের পরে অলক নিতাই দাসের বাবা-মা মন্ত্রীকে সেই চেষ্টা করার জন্য আবেদন জানান।
গত বছর ৪ অক্টোবর দিনহাটা কলেজের পড়ুয়া অলক নিতাই দাসকে কলেজ থেকে টেনে বের

করে এনে মারাত্মক ভাবে মারধোর কড়া হয়। ওই ঘটনার দুদিন পরে কোচবিহারে একটি নার্সিং হোমে চিকিৎসাধীন থাকা অবস্থায় তাঁর মৃত্যু হয়। তৃণমূলের যুব গোষ্ঠীর সমর্থক অলক নিতাই দাসকে পিটিয়ে খুন করার অভিযোগ ওঠে তৎকালীন তৃণমূল ছাত্র পরিষদের সভাপতি সাবির সাহা চৌধুরী সহ একাধিক মাদার গোষ্ঠীর নেতা কর্মীর বিরুদ্ধে। ওই ঘটনায় গোটা রাজ্য জুড়ে ব্যাপক শোরগোল পড়ে যায়।

রাজ্য নেতৃত্ব সাবির সাহা চৌধুরীকে দল থেকে বহিস্কারের কথা ঘোষণা করে। স্থানীয় তৃণমূল কংগ্রেস বিধায়ক উদয়ন গুহ দেখা করতে গেলে তাঁকে ঘিরে বিক্ষোভ দেখানো হয়। তারপর আর কোন নেতা মন্ত্রীকে অলক নিতাই দাসের বাড়িতে যেতে দেখা যায় নি। ফলে অলক নিতাই দাসের পরিবার অনেকটা হতাশ হয়ে পড়েছিল। ঘটনার তিন মাস বাদে উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন মন্ত্রী রবীন্দ্রনাথ ঘোষের কাছে চাকরির আশ্বাস পেয়ে অনেকটাই আশ্বস্ত অলক নিতাই দাসের পরিবার।

এছাড়াও চেক করুন

মুখ্যমন্ত্রীর পাঠানো নতুন বছরের শুভেচ্ছা বার্তায় আপ্লুত দিনহাটার খুদে পড়ুয়ারা

মনিরুল হক, কোচবিহারঃ আচমকা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাছ থেকে নতুন বছরের শুভেচ্ছা বার্তার চিঠি পেয়ে …

Leave a Reply

Your email address will not be published.