Breaking News
Home >> Breaking News >> কাটোয়ার আমডাঙ্গা গ্রামের প্রাক্তন শিক্ষক দীনবন্ধু দে প্রয়াত

কাটোয়ার আমডাঙ্গা গ্রামের প্রাক্তন শিক্ষক দীনবন্ধু দে প্রয়াত


গৌরনাথ চক্রবর্ত্তী,কাটোয়াঃ পূর্ব-বর্ধমানের কাটোয়ার জগদানন্দপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের আমডাঙ্গা গ্রামের প্রাক্তন শিক্ষক দীনবন্ধু দে(৬৫) মারা গেলেন।বুধবার সকাল ১০টায় কাটোয়া মহকুমা হাসপাতালে মারা যান প্রাক্তন শিক্ষক। দীর্ঘদিন তিনি শিক্ষকতার কাজে যুক্ত ছিলেন।প্রথমে কেতুগ্রামের মাঝিনা প্রাথমিক বিদ্যালয়ে কর্মজীবন শুরু করেন।তারপর কাটোয়ার ঘোড়ানাশ প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ও কাটোয়ার দেয়াসীন প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষকতা করেন।কাটোয়ার আমডাঙ্গা প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষকতা হিসাবে যোগ দেন এবং সেখানে থেকেই অবসর গ্রহণ করেন।পাশাপাশি তিনি সারাজীবন দক্ষিণপন্থী রাজনীতির সঙ্গে ওতপ্রোতভাবে যুক্ত ছিলেন।মৃত্যুদিন পর্যন্ত তিনি জগদানন্দপুর অঞ্চল তৃণমূল কংগ্রেস কমিটির উপদেষ্টা ছিলেন।তিনি একসময় ঘোড়ানাশ উচ্চ বিদ্যালয়ে পরিচালকমণ্ডলীর সভাপতি ও ছিলেন। দীনবন্ধু দে-এর মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে আসে।
পারিবারিক সূত্রে জানা যায়,প্রায় একমাস শ্বাসকষ্ট জনিত রোগে শিক্ষক দীনবন্ধু দে কাটোয়া মহকুমা হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন। বুধবার সকাল ১০টার সময় তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।মৃতদেহ বেলা তিনটার সময় দাঁইহাট বাসভবনে, তারপর নিজ গ্রাম আমডাঙ্গা বাসভবনে, আমডাঙ্গা প্রাথমিক বিদ্যালয়ে,তারপর মুস্থূলীর তৃণমূল কংগ্রেসের কার্যালয়ে ও ঘোড়ানাশ উচ্চ বিদ্যালয়ে মৃতদেহ নিয়ে যাওয়া হয়।
তৃণমূল কংগ্রেসের কার্যালয়ে পুষ্পস্তবক ও মালা দিয়ে শেষ শ্রদ্ধা জানান জগদানন্দপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান গৌতম ঘোষাল,পঞ্চায়েতের সদস্য ইসমাইল দফাদার,,কাটোয়া ২নং পঞ্চায়েত সমিতির সদস্য শিশির লাহা,পঞ্চায়েতের প্রাক্তন সদস্য ভাস্কর চ্যাটার্জ্জী সহ তৃণমূল কর্মী ও সমর্থকরা।
ঘোড়ানাশ উচ্চ বিদ্যালয়ে শেষ শ্রদ্ধা জানান বিদ্যালয়ের শিক্ষক, শিক্ষিকা ও পরিচালন কমিটির সদস্যরা।দীনবন্ধু দে তাঁর স্ত্রী ভারতী দে,একমাত্র ছেলে বিষ্ণুপদ দে,দুই মেয়ে সোমা ও ইন্দ্রিরা রেখে চিরবিদায় নিলেন। সকলেই তাঁর আত্মার শান্তিকামনা করেন।

এছাড়াও চেক করুন

শীতের আগে ঝাড়গ্রামবাসীকে আনন্দ দিতে হাজির কোহিনুর সার্কাস

ঝাড়গ্রাম:- ঝাড়গ্রামে শুরু হলো কোহিনুর সার্কাস। আগামী একমাস দুপুর ১টা , বিকেল ৪টা ও সন্ধ্যা …

Leave a Reply

Your email address will not be published.